অবশেষে চীন তাদের এক অপরাধ স্বীকার করল

যুক্তরাষ্ট্র বরাবরই করোনাভাইরাসের জন্য চীনকে দায়ী করে আসছে। মার্কিন পররাষ্ট্রমন্ত্রী মাইক পম্পেও বেশ কয়েকবার দাবি করেছেন যে, করোনাভাইরাসের নমুনা ধ্বংস করে ফেলেছে চীন। এবার পম্পেওর এমন অভিযোগই স্বীকার করে নিল বেইজিং। চীন জানিয়েছে, প্রথমদিকের কিছু নমুনা তারা নষ্ট করে ফেলেছে।

চীনের ন্যাশনাল হেলথ কমিশনের কর্মকর্তা লিউ ডেংফেং জানিয়েছেন, গত জানুয়ারি মাসে সরকার করোনাভাইরাসের নমুনা নষ্ট করে ফেলার নির্দেশ দিয়েছিল। অনুমোদিত নয় এমন ল্যাবে এগুলো নষ্ট করে ফেলতে বলা হয়েছিল।

তবে ওই কর্মকর্তার দাবি, করোনাভাইরাসের প্রমাণ লোপাটের জন্য নমুনা নষ্ট করে ফেলা হয়নি। গবেষণাগারের সুরক্ষার কথা ভেবেই এমন সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়েছে বলে দাবি করেছেন তিনি। চীনের স্বাস্থ্য বিষয়ক আইন অনুযায়ী, এগুলো নষ্ট করা হয়েছে বলে জানানো হয়েছে।

প্রথম থেকেই করোনা ভাইরাস ছড়িয়ে পরার পেছনে চীনের হাত রয়েছে এমনটাই মনে করে আসছে অনেক দেশ। এমনকি যুক্তরাষ্ট্রও বারবার এই কথার ওপরই জোর দিয়েছে। একাধিকবার অভিযোগ তোলার পাশাপাশি সম্প্রতি, সরাসরি দুই দেশের মধ্যকার সব ধরনের সম্পর্ক ভেঙে দেওয়ার হুমকি দিয়েছেন মার্কিন প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্প।

মার্কিন একটি নিউজ চ্যানেলকে দেওয়া এক সাক্ষাৎকারে ট্রাম্প বলেছেন, আমরা অনেক কিছুই করতে পারি। আমরা সব সম্পর্ক শেষ করতে পারি।

সম্প্রতি এক সাক্ষাৎকারে মার্কিন পররাষ্ট্রমন্ত্রী মাইক পম্পেও বলেছেন, উহানের একটি ল্যাবরেটরি থেকেই এই প্রাণঘাতী ভাইরাসের উৎপত্তি। তার দাবি, এই বিষয়ে যথেষ্ট প্রমাণ রয়েছে। তবে বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থা জানিয়েছে, চীনা ল্যাব করোনা ভাইরাস ছড়িয়েছে, এমন প্রমাণ যুক্তরাষ্ট্র এখনও দিতে পারেনি।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *